• শিরোনাম

    আগামীকাল খারঘর গণহত্যা দিবস । ৪৩ জন শহীদদের স্মরণে দিবসটি পালিত হয়

    নিউজ ডেস্ক | বুধবার, ০৯ অক্টোবর ২০১৯ | পড়া হয়েছে 102 বার

    আগামীকাল খারঘর গণহত্যা  দিবস । ৪৩ জন শহীদদের স্মরণে দিবসটি পালিত হয়

    ফাইল ছবি

    আগামীকাল ১০ই অক্টোবর খারঘর গণহত্যা দিবস। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরের বড়াইল ইউনিয়নে খারঘর পাগলা নদীর তীরে ‘৭১ স্মৃতিস্তম্ভ’ এর সামনে যথাযোগ্য মর্যাদায় দিবসটি পালনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

    সকাল ৯ টায় মহান বড়াইল-খারঘর যুদ্ধে দেশের জন্য জীবন উৎসর্গ করা মুক্তিযোদ্ধা ও নিরীহ গ্রামবাসীদের স্মরণে গার্ড অব অনার প্রদর্শনের পাশাপাশি পুস্পস্তবক অর্পণ করা হবে। পরে শহীদদের স্মরনে মিলাদ মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে।

    খারঘর গণকবর সংরক্ষণ ও বাস্তবায়ন কমিটির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার ও সাধারণ সম্পাদক আইনজীবি মো. মহিউদ্দিন আহমেদ জীবন সবাইকে অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকার অনুরোধ করেছেন।

    উল্লেখ্য,১৯৭১ সালের ১০ই অক্টোবর বড়াইল যুদ্ধ ও খারঘর গণহত্যায় নিহত হন ৪৩ জন মুক্তিযোদ্ধা ও নিরীহ গ্রামবাসী। পাকিস্তানী হানাদাররা সেদিন সকালে জাহাজে করে পানি পথে এসে খারঘরে আক্রমন চালায়। তাদের অতর্কিত আক্রমনে টিকতে না পেরে মুক্তিযোদ্ধারা বড়াইল ছেড়ে সরে যেতে বাধ্য হন।

    এ সময় যুদ্ধে বড়াইলের জালশুকার মোহাম্মাদ গোলাপ সহবেশ ক’জন মুক্তিযোদ্ধা মারা যান। বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ গোলাপ স্মরণে জালশুকা- বড়াইল বাজার সড়কটির নামকরণ করেন বড়াইল ইউপি চেয়ারম্যান খালেক বাবুল। ১৯৭১ সালের অক্টোবরে হাজী মো. তাজুল ইসলাম, মো. সোহরাওয়ার্দী, আল মামুন সরকারসহ মুক্তিযোদ্ধাদের বেশ ক’টি গেরিলা গ্রুপ বড়াইল অবস্থান করছিল। তবে পাকিস্তানিদের ভারি অস্ত্রশস্ত্রের সামনে তারা বেশিক্ষন টিকে থাকতে পারেননি।

    এর আগে স্থানীয় রাজাকার ও যুদ্ধাপরাধীদের হামলায় ১৯৭১ সালের ২৪শে এপ্রিল বড়াইল বাজার সংলগ্ন হিন্দু বাড়ির ৮ জন পুরুষকে হত্যা করা হয়। হিন্দু বাড়ির ১ জন হিন্দু নারীর সম্ভ্রমহানিও করা হয়।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    নবীনগরে ভুয়া ডাক্তার আটক

    ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | 5489 বার

    নবীনগরে অস্ত্র সহ গ্রেপ্তার ১

    ২৯ জানুয়ারি ২০১৮ | 2856 বার

    আর্কাইভ

  • ফেসবুকে nabinagar71.com