• শিরোনাম

    ওটিটি প্ল্যাটফর্মকে নিয়মের মধ্যে আনতে কমিটি করা হবে

    সাব এডিটর | বুধবার, ১৮ নভেম্বর ২০২০ | পড়া হয়েছে 58 বার

    ওটিটি প্ল্যাটফর্মকে নিয়মের মধ্যে আনতে কমিটি করা হবে

    ওটিটি প্ল্যাটফর্মকে নিয়মের মধ্যে আনতে কমিটি করা হবে

    ভিডিও স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্ম বা ওভার দ্য টপ (ওটিটি) প্ল্যাটফর্মকে নিয়ম-নীতির মধ্যে আনতে একটি কমিটি করা হবে বলে জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।

    বুধবার (১৮ নভেম্বর) সচিবালয়ে তথ্য মন্ত্রণালয় সভাকক্ষে ওটিটি প্ল্যাটফর্ম নিয়ে কাজ করা দেশের বেসরকারি উদ্যোক্তাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন মন্ত্রী।

    তিনি বলেন, ‘মানুষকে সুষ্ঠু সুন্দর বিনোদন দিতে পারে একইসঙ্গে দেশ ও সমাজ গঠন, তরুণদের মনন গঠন, দেশকে স্বপ্নের ঠিকানায় নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে এই প্ল্যাটফর্মগুলো কিভাবে কাজ করতে পারে সে নিয়ে একটি কমিটি করে দেবো। এই কমিটি শুধু নিয়ম-নীতির মধ্যে আনার জন্য কাজ করবে তা নয়। আমাদের দেশে এই ওটিটি প্ল্যাটফর্ম কিভাবে প্রমোট হয়, উদ্যোক্তারা আসে, দেশে এ ধরনের প্ল্যাটফর্ম তৈরি হয়, সে বিষয়ে তারা সাজেশন দেবে। এটিই আজকের বৈঠকের সিদ্ধান্ত।’

    তথ্যমন্ত্রী বলেন, ওভার দ্য টপ বা ওটিটি প্ল্যাটফর্ম মানুষের ব্যবহারের জন্য অনেক বেশি সুবিধাজনক। এজন্য মানুষ ধীরে ধীরে এই প্ল্যাটফর্মে অভ্যস্ত হচ্ছে। এই বাস্তবতায় আমরা দেখতে পাচ্ছি যে ওটিটি কনটেন্ট নিয়ে অনেক পত্র-পত্রিকায় প্রতিবেদন প্রকাশ হয়েছে। যা আমাদের আর্থ-সামাজিক প্রেক্ষাপটে কৃষ্টি ঐতিহ্যের সঙ্গে সাংঘর্ষিক বলে বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় এসেছিল। তখন আমরা সবাইকে সতর্ক থাকতে বলেছিলাম৷

    ‘পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এই ওটিটি প্ল্যাটফর্মকে একটি নিয়ম-নীতির মধ্যে আনার জন্য উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। ভারতেও ওটিটি প্ল্যাটফর্মে কোন কিছু আপলোড করার আগে একটি নিয়ম-নীতির মধ্য করার জন্য প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। আমাদের আজকের বৈঠকের উদ্দেশ্য হচ্ছে ওটিটি প্ল্যাটফর্মকে কীভাবে একটি নিয়ম-নীতির মধ্যে নিয়ে আসা যায়। একইসঙ্গে আমাদের দেশীয় উদ্যোক্তাদের এ বিষয়ে উৎসাহিত করা যায়।’

    আমাদের দেশে এখন অন্য দেশের ওটিটি প্ল্যাটফর্ম এসে কাজ করছে জানিয়ে হাছান মাহমুদ বলেন, ‘তারা আমাদের দেশ থেকে রাজস্ব নিয়ে চলে যাচ্ছে। আমাদের দেশে কোন জনপ্রিয় ওটিটি প্ল্যাটফর্ম না থাকায় নির্মাতারাও বিদেশি ওটিটি প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করতে অনেক ক্ষেত্রে বাধ্য হচ্ছে। এ বাস্তবতায় আমরা চাই এখাতে আমাদের উদ্যোক্তারা এগিয়ে আসুক। পাশাপাশি আমাদের দেশে বিশ্বমানের ওটিটি প্ল্যাটফর্ম গড়ে উঠুক। যেটি শুধু আমাদের দেশের মানুষদের বিনোদন দেবে তা নয়, বিশ্ব প্রেক্ষাপটে যাতে অন্য দেশ থেকেও আমরা রাজস্ব অর্জন করতে পারি সেই জায়গায় নিয়ে যাওয়ার জন্য আমাদের উদ্যোক্তারা কাজ করবে।’

    চলচ্চিত্র ও প্রকাশনা অধিদফতরের (ডিএফপি) মাধ্যমে ওটিটি প্ল্যাটফর্ম করা যায় কি না সেটা নিয়ে আলোচনা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী।

    ‘আজকে আমরা প্রাথমিকভাবে আলাপ আলোচনা করেছি। এ নিয়ে আমরা যারা বেসরকারি উদ্যোক্তা রয়েছে যারা ওটিটি প্ল্যাটফর্ম নিয়ে কাজ করে তাদের ডেকেছি। সেখানে ওটিটি প্ল্যাটফর্ম কিভাবে নিয়ম-নীতির মাধ্যমে সুষ্ঠুভাবে পরিচালিত হয় সেজন্য একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছি যে, সহসা আমরা একটি বড় কমিটি করে দেবো।’

    বর্তমানে ওটিটি প্ল্যাটফর্ম থেকে সরকার কোন রাজস্ব পাচ্ছে কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘ওটিটি প্ল্যাটফর্মে আমাদের দেশ থেকে যেগুলো আপলোড করা হচ্ছে সেগুলো থেকে ১৫ শতাংশ ভ্যাট পাচ্ছে। কিন্তু যেগুলো বিদেশ থেকে আপলোড করা হচ্ছে সেগুলো থেকে কোন ভ্যাট পাচ্ছি না। বিশেষ করে যারা এই প্ল্যাটফর্ম চালায় তারা কোন ট্যাক্স দিচ্ছে না।’

    Comments

    comments

    আর্কাইভ

  • ফেসবুকে