• শিরোনাম

    বাঙ্গরা বাজারে 

    মকবুল প্লাজায় জমে উঠেছে ঈদের বাজার,ব্যস্ত সবাই কেনা-কাটায়

    নিউজ ডেস্ক | শুক্রবার, ১৫ এপ্রিল ২০২২ | পড়া হয়েছে 97 বার

    মকবুল প্লাজায় জমে উঠেছে ঈদের বাজার,ব্যস্ত সবাই কেনা-কাটায়

    ঈদ মানে আনন্দ আর এই আনন্দের প্রস্তুতি নিতেই প্রতি বছরের মত এবারও আসন্ন ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে সবাই কেনা-কাটায়। আর জমে উঠেছে নবীনগর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় ঈদ বাজার। এবার ক্রেতাদেরকে একটু আগে থেকেই ঈদের কেনাকাটা করতে দেখা যাচ্ছে। এর কারণ হিসাবে অনেক ক্রেতারা জানায় ঈদেও কেনাকাটা তো কম বেশি করতেই হবে তাই প্রথমেই দেখে শুনে কেনার সময় বেশ ভালো পাওয়া যায়। তাই একটু আগে থেকেই সচেতন ক্রেতারা কেনা কাটা শুরু করেছেন।

     

    নবীনগর উপজেলার জিনদপুর ইউনিয়নের বাঙ্গরা বাজারের মকবুল হোসেন প্লাজার বিপনী বিতানগুলোতে দেখা গেছে ঈদের আমেজ। সব দোকানেই ক্রেতার সমাগম লক্ষ্য করা গেছে। পাশাপাশি আসন্ন ঈদকে সামনে রেখে ব্যস্ত সময় পার করছে দর্জি পাড়ার কারিগররা। অনেকেই আবার ঈদের কেনাকাটার ভিড় জমার আগেই দর্জির দোকানগুলোতে পছন্দ মতো কাপড় কিনে তৈরি করতে দিচ্ছেন বিভিন্ন পোষাক।তবে গত বারের চেয়ে এবার প্রতিটি কাপড়ের দোকানগুলোতে দেখা যাচ্ছে ক্রেতাদের উপচে পরা ভিড়। এছাড়া শাড়ির দোকানগুলোতেও রয়েছে সমান ভিড়। শাড়ী ও তার সাথে ম্যাচ করে অন্যান্য জিনিসপত্র কেনার জন্য সবাই এখন ব্যস্ত।

     

    সবাই এই ঈদে দেশি-বিদেশি কাপড় কেনায় বেশি ব্যস্ত। এলাকার বিভিন্ন কাপড়ের দোকানে দেখা গেছে দেশি-বিদেশি থ্রি পিচ কেনার জন্য মেয়েদের উপচে পড়া ভিড়। ঈদ মানে আনন্দ তাই অভিভাবকদের একটু কষ্ট হলেও সন্তানসহ অন্যান্য প্রিয়জনের মুখে হাসি ফুটাতেই শত সমস্যা উপেক্ষা করে কিনে দিচ্ছেন।গত দুই বছর করোনার কারনে বেচাকেনা তেমন ভাল না হলেও এই বছর প্রত্যাশার চেয়েও বেশি বিক্রয় বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানান ব্যবসারীরা।২০২১ সালে বাঙ্গরা বাজারে প্রতিষ্টিত মকবুল হোসেন প্লাজার ইতিমধ্যেই ক্রেতা সাধারনের পছন্দের শীর্ষ্বে রয়েছেন এমনটিই জানান ব্যবসায়ীরা। মকবুল হোসেন প্লাজার পাওয়া যাচ্ছে সব ধরনের আইটেম।

     

    মকবুল হোসেন প্লাজার ঈদ বাজার করতে আসা মামুন, রিতু, সুমি, রানা, হোসেন, শিউলী, নাজনীন সহ বেশ কয়েকজনের সাথে কথা হলে তারা জানান, প্রতি বছরের তুলনায় এবার একটু আগেই ঈদের কেনাকাটা শুরু করেছি। কারণ শেষ সময়ের দিকে তেমন একটা ভালো জিনিস পাওয়া যায় না। তাই আগেই পরিবারের পছন্দ মতো কেনাকাটা করে রাখার জন্য মার্কেটে এসেছি।

    এবার থ্রি-পিচসহ ছেলেদের প্যান্ট ও শ্যার্ট এবং কসমেটিক্স’র দাম খুবই চড়া। তাই কাপড় কিনে বানাতে দিয়েছেন অনেকেই । মকবুল হোসেন প্লাজার ব্যবসায়ীরা জানান, ঈদ কেনাকাটায় ইতিমধ্যে তাদের কেনাবেঁচার ধুম পড়েছে। রুচিশীল পোষাক, জুতা, কসমেটিক্সের জন্য সবাইকে মকবুল প্লাজায় আমন্ত্রণ জানান তারা।

     

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    নবীনগরে প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা

    ১৫ অক্টোবর ২০২০ | 919 বার

    আর্কাইভ

  • ফেসবুকে